Posts Subscribe to This BlogComments

Follow Us

Wednesday, October 31, 2012

অলিয়া

ওসমান্থাস খুব ছোট্ট আকৃতির সাদা ফুল। চীন এর আদি বাসস্থান। ঐতিহ্যগতভাবে ফুলটি সেখানে ভালোবাসা ও বিশ্বাসের প্রতীক। এর উদ্ভিদবিজ্ঞানীয় নাম Osmanthus fragrans। সম্পূরক নাম Olea fragrans ও Olea ovalis। টি-অলিভ ও সুইট-অলিভ নামেও এটি পরিচিত। আর জাপানে এর পরিচয় Kinmokassei, পরিবার Oleaceae।
Osmanthus গ্রিক শব্দ। Osona হলো সুগন্ধ। anthus হচ্ছে ফুল। সুগন্ধি ফুল ওসমান্থাসের ঘ্রাণ অনেক দূর থেকে পাওয়া যায়। গন্ধ অচেনা নয়, তবে ব্যতিক্রমী। একটু দ্বিধাদ্বন্দ্ব, মিল খোঁজা, শেষে রহস্য ভেদ করতে চাইলে ওসমান্থাসের সঙ্গে পাকা বেলের গন্ধের কিছু মিল পাওয়া যায়।
উনিশ শতকের মধ্যভাগে ফ্রান্সের উদ্ভিদবিজ্ঞানী Jean Marie Delavay প্রথম চীন দেশের বাইরে এর পরিচিতি তুলে ধরেন। ছোট্ট আকৃতির গাছ ওসমান্থাস। উচ্চতা তিন-চার ফুটের মতো। ওলিয়েস পরিবারভুক্ত গাছগুলো বেশির ভাগই ধীরগতিতে বাড়ে। ওসমান্থাসও এর ব্যতিক্রম নয়।
ওসমান্থাসের ডিম্বাকৃতি গাঢ় সবুজ পাতার সঙ্গে চা ও ক্যামিলিয়ার চমৎকার মিল রয়েছে। শুধু মিল নয়, সবুজ ও কালো চায়ের সঙ্গে এর ব্যবহার চীনে ঐতিহ্যগত। সচরাচর আমরা যে চা খাই, সে চায়ের সঙ্গে অথবা গ্রিন বা ব্ল্যাক টির সঙ্গে অল্প পরিমাণ ওসমান্থাস ও জেসমিনের পাপড়ির মিশ্রণ একটি পাত্রে বিশেষ প্রক্রিয়ায় মুখ বন্ধ করে কয়েক সপ্তাহের জন্য রেখে দিতে হয়। সে চা পরিবেশন করা হয় বিশেষ দিন বা বিশেষ অনুষ্ঠানে।
চীন দেশে সেপ্টেম্বর মাস ওসমান্থাসের সেরা সময়। তখন সেখানে চন্দ্র-উৎসব হয়। সে উৎসবের মূল আকর্ষণও এই ফুল। ওসমান্থাস ফুল দিয়ে নববধূকে বরণ করাও চীনা রীতির অন্যতম একটি অংশ।

Related Post



0 comments:

Post a Comment

Bangla Help

Sponsor